Breaking News
Home / পাবনা সদর / বিশ্বকাপ ফুটবল উন্মাদনা পাবনায়; আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিলের জার্সি পতাকা বিক্রি হচ্ছে বেশি

বিশ্বকাপ ফুটবল উন্মাদনা পাবনায়; আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিলের জার্সি পতাকা বিক্রি হচ্ছে বেশি

এম মাহফুজ আলম
কাতার বিশ্বকাপ ফুটবলের উন্মাদনা ছড়িয়ে পড়েছে পাবনায়। আগামীকাল রোববার (২০ নভেম্বর) শুরু হচ্ছে বিশ্বকাপ ফুটবল। বসতবাড়ির বিল্ডিং, রাস্তার পাশের বৃক্ষরাজিতে শোভা পাচ্ছে বিশ্বকাপ ফুটবলে অংশ গ্রহণকারী দেশের পতাকা। তবে তুলনা মূলক আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিলের পতাকা পতপত কওে উড়ছে বেশি। বিশ্বেও সবচেয়ে বড়ইভেন্ট উপলক্ষে শহরের বিভিন্ন খেলার সামগ্রী বিক্রির দোকানে জার্সি বেচাকেনা জমে উঠতে শুরু করেছে। সাথে চলছে প্রিয় দলগুলোর পতাকা, ক্যাপসহ মাথারফিতাও বেচাকেনা হচেছ। গতবারের চেয়ে এবার বেচাকেনা বেশি বলে জানিয়েছেন বিক্রেতারা।
দীর্ঘ চার বছরের অপেক্ষার অবসান ঘটছে। মাঝখানে আর মাত্র একদিন। এরপরেই শুরু হতে যাচ্ছে বিশ্বেও সবচেয়ে বড় আসর ফুটবল বিশ্বকাপ। এ উপলক্ষে পাবনা শহরের বিভিন্ন খেলাধুলার সামগ্রীর দোকানগুলো সেজে উঠেছে। বিভিন্ন বয়সী মানুষ কিনছেন প্রিয় দলের জার্সি। জার্সি কিনতে শিশুরা যেমন আসছে, তেমনি আসছেন বয়স্করাও। তবে, শুধুজার্সি কেনাতেই সীমাবদ্ধ নেই ক্রেতারা। পাশাপাশি চলছে পতাকা, ক্যাপ, মাথারফিতার বেচাকেনা। ফুটপাত, বাজার, স্কুল কলেজের সামনে, শহরের ব্যস্ত এলাকায় ফেরিওয়ালারা বিক্রি করছেন পতাকা ও মাথারফিতা। শহরের বিভিন্ন জায়গার দোকানে বিভিন্ন দামে জার্সি বিক্রি হচ্ছে। বিক্রির প্রধান তালিকায় আর্জেন্টিনার জার্সি ও পতাকা। দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ব্রাজিল। বেচাকেনার তালিকায় তৃতীয় স্থানে রয়েছে জার্মানির জার্সি। এছাড়া বিক্রি হচ্ছে, ফ্রান্স, স্পেন, পর্তুগালের জার্সিও। শহরের রবিউল মার্কেট ও দৈ বাজার মোড়সহ বিভিন্ন অলিগলিতে ছোটজার্সি বিক্রি হচ্ছে ১০০ থেকে ৩০০ টাকায়। মাঝারি ও বড়জার্সি ৩৫০ থেকে ১,২০০ টাকা পর্যন্ত বিক্রি হচ্ছে। বিভিন্ন দামে বিক্রি হচ্ছে পতাকা। কাগজের ছোট পতাকা বিক্রি হচ্ছে পাঁচ থেকে দশ টাকায়। কাপড়ের ছোট পতাকা ৩০ থেকে ৩৫ টাকা। মাঝারি আকারের কাপড়ের পতাকা ৫০ থেকে ৬০ টাকা। বড় পতাকা ৮০ থেকে ১০০ টাকা। ১০ ফুট আকারের পতাকাবিক্রি হচ্ছে ২০০ টাকায়। ৬ ফুট ১২০ টাকা। আড়াই ফুট আকারের পতাকা বিক্রি হচ্ছে ৩৫ থেকে ৫০ টাকায়। আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিলের বিভিন্ন ডিজাইনের ক্যাপবিক্রি হচ্ছে ১০০ থেকে ১২০ টাকায়।
স্কুল শেষে আইডিয়াল স্কুল ও কলেজের ষষ্ঠ শ্রেণির শিক্ষার্থী সাহাবুল হাসান আসে চুড়িপট্টির দোকানে। খোঁজ কওে ব্রাজিলের জার্সি। সে জানায়, বাড়িতে বাবা এবং সে ব্রাজিলের সমর্থক। তবে, মা আর্জেন্টিনার ভক্ত। রবিউল মার্কেটে খেলাধুলার সামগ্রীর দোকানে কথা হয় আরেক ক্রেতা মাহমুদ হাসানর সাথে। তিনি বলেন, ছেলের জন্য জার্সি কিনতে এসেছেন। সে আর্জেন্টিনার জার্সি চেয়েছে। অন্যদিকে, শহরের বিভিন্ন প্রান্তে ফেরিওয়ালারা আকার অনুযায়ী পতাকা বিক্রি করছেন সর্বনিম্ন ৮০ থেকে সর্বোচ্চ ১৮০ টাকায়। ফেরিওয়ালা আনিসুর রহমান বলেন, প্রতিদিন নাটোর থেকে সকাল আটটায় পাবনা শহওে আসেন। রাত আটটায় ফিওে যান। বেচাকেনা ভালোই হচ্ছে। চুড়িপট্টির পতাকা বিক্রেতা বাবুল আক্তার বলেন, পনেরো দিন আগে দোকানে ২০ হাজার টাকারপ তাকা আনেন। ইতিমধ্যে দশ হাজার টাকার পতাকা বিক্রি হয়েছে। আর্জেন্টিনার পতাকার চাহিদা সবচেয়ে বেশি। গতবারের চেয়ে এবার বিক্রি বেড়েছে। রবিউল মার্কেটে খেলার সামগ্রী বিক্রেতা আকরাম হোসাইন বলেন, আর্জেন্টিনার জার্সি বেশি বিক্রি হচ্ছে। মেসির কারণে আর্জেন্টিনার ভক্ত সংখ্যা বেশি বলে মনে হচ্ছে। খেলা চলাকালীন বিক্রি আরও বাড়বে।

Check Also

উন্নয়ন তরান্বিত করতে কর্ম চুক্তি সম্পাদন, সিটিজেন চার্টার, শুদ্ধাচার বাস্তবায়ন করতে হবে-জেলা প্রশাসক

রফিকুল ইসলাম সুইট : পাবনা জেলা প্রশাসক বিশ^াস রাসেল হোসেন বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার …

সরকার শিক্ষা ব্যবস্থা উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে – এমপি প্রিন্স

মিজানুর রহমান: পাবনা সদর উপজেলার চর ঘোষপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নবনির্মিত ভবনের উদ্বোধন করা হয়েছে। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *